1. talash@talashprotidin24.com : Talash 1 : Talash 1
  2. iveerahaman@gmail.com : talash protidin : talash protidin
  3. talashprotidin2019@gmail.com : talashadmin :
সোমবার, ০৬ এপ্রিল ২০২০, ০৩:৫৪ পূর্বাহ্ন
নোটিশ :
সারাদেশে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে...আগ্রহীরা সিভি/বায়োডাটাসহ জীবনবৃত্তান্ত পাঠান :  talashprotidin2019@gmail.com/ chowdhuryshamim2018@gmail.com মোবাইল : ০১৭১১২০২৫১৯, ০১৩১৬৩৮৩৩১৮
সংবাদ শিরোনাম :
মঙ্গলবার থেকে সংসদ টেলিভিশনে শুরু হচ্ছে প্রাথমিকের ক্লাস কোভিড-১৯ মোকাবিলায় ৭২,৭৫০ কোটি টাকার প্যাকেজ ঘোষণা করেছেন প্রধানমন্ত্রী ভিক্ষুক থেকে শিল্পপতি সবাই আছেন প্রধানমন্ত্রীর প্যাকেজে : তথ্যমন্ত্রী বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী নির্দেশনায় তারাব পৌর আওয়ামী লীগের উদ্যোগে তারাব পৌরসভার ৬নং ওর্য়াড স্বেচ্ছাসেবক লীগের খাদ্য সামগ্রী বিতরণ নোভেল করোনা ভাইরাস নিয়ে ফেসবুক গুজব ছড়ানোর অভিযোগে রংপুর মেট্রোপলিটন ডিবি পুলিশ ৫ জনকে গ্রেফতার করছেন। রংপুর সিটি কপোরেশনে (রসিক)এলাকার ১৫টি স্থানে ১০টাকা কেজি দরে চাল আটা বিক্রি করছেন। করোনায় ঝুঁকি বাড়িয়ে কর্মস্থলে ছুটছে মানুষ দেশে আরো ৯ জন করোনায় আক্রান্ত শবে বরাতের নামাজ ঘরে আদায়ের অনুরোধ ইসলামিক ফাউন্ডেশনের একমাসের লকডাউনে সিঙ্গাপুর

অনলাইন ব্যাংক জালিয়াতি চক্রের তিন সদস্য গ্রেফতার

তালাশ প্রতিদিন ডেস্কঃ
  • আপডেট সময় : রবিবার, ২২ মার্চ, ২০২০
  • ৪৬ বার দেখা হয়েছে

অনলাইন ব্যাংক জালিয়াতি চক্রের তিন সদস্যকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের সাইবার নিরাপত্তা ও অপরাধ বিভাগের সোশ্যাল মিডিয়া টিম।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন- চক্রের প্রধান মামুন তালুকদার এবং  তার দুই সহযোগী রাজু ফারাজী ও মোঃ মিঠু মৃধা।

সাইবার নিরাপত্তা ও অপরাধ বিভাগের অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার মোঃ নাজমুল ইসলাম, বিপিএম ডিএমপি নিউজকে বলেন,  ২০ মার্চ, ২০২০ ভোর ০৫.০০ টায় সাইবার ব্যাংক প্রতারক চক্রের প্রধান মামুনকে কক্সবাজার থেকে গ্রেফতার করা হয়। তার সহযোগী রাজুকে একই দিন ঢাকার যাত্রাবাড়ি থেকে এবং ২১ মার্চ ২০২০ ভোরে মিঠুকে ফরিদপুরের ভাঙা থেকে গ্রেফতার করা হয়।

তিনি বলেন, এ সময়ে তাদের কাছ থেকে ব্যাংকিং প্রতারণার কাজে ব্যবহৃত একটি এক্সিও গাড়ি, ৭ টি বিশেষ অ্যাপসযুক্ত মোবাইল ফোন, বহু ভুয়া রেজিস্ট্রেশনকৃত মোবাইল সিমকার্ড, একাধিক ব্যাংক, বিকাশ, নগদ ও স্ক্রিল একাউন্ট জব্দ করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা তাদের অপরাধের কথা স্বীকার করেছেন।

তিনি আরো জানান, বেশ কিছু মাস যাবত এই প্রতারক চক্র অভিনব ও সুনিপুণ কায়দায় বিভিন্ন ডায়লার অ্যাপস দিয়ে কয়েকটি ব্যাংকের হেড অফিসের কার্ড ডিভিশনের মোবাইল নম্বর স্পুফ করে শাখা-ম্যানেজারদের কল দিয়ে আগের মাসের নতুন কার্ড ব্যবহারকারীদের নাম, কার্ড নম্বর এবং মোবাইল নম্বর সংগ্রহ করতেন। তারপর প্রতারকরা ব্যাংকের কাস্টমার কেয়ার এজেন্ট সেজে গ্রাহকদের কল করে বলতেন যে, তারা ব্যাংক থেকে তার নতুন কার্ডটি একটিভ করা বা অন্য কিছু ফিক্স করার জন্য কল করেছেন। এরপর চক্রটি কৌশলে স্পুফড মোবাইল কলের মাধ্যমেই গ্রাহকদের কার্ডের মেয়াদ, ৩/৪ ডিজিটের সিভিভি কোড এবং প্রয়োজন সাপেক্ষে মোবাইলের ওটিপি সংগ্রহ করেন গ্রাহকদের কার্ড থেকে টাকা/ডলার প্রতারকদের লন্ডন ভিত্তিক ই কমার্স অ্যাপস স্ক্রিল একাউন্ট, বিকাশ বা নগদ এ ট্রান্সফার করে ও পরবর্তীতে এটিএম বুথ বা বিকাশ বা নগদ এজেন্ট থেকে ক্যাশ আউট করতেন। এভাবে দেশের একাধিক শীর্ষ স্থানীয় ব্যাংকের শতাধিক গ্রাহকদের অর্ধ কোটি টাকা চুরি গেলে কয়েকটি ব্যাংক কর্তৃপক্ষ ডিএমপির সাইবার সিকিউরিটি এন্ড ক্রাইম বিভাগে অভিযোগ আসলে উক্ত টিম ঢাকা, ফরিদপুরের ভাঙ্গা এবং কক্সবাজারের প্রায় লক্ষাধিক মোবাইল নাম্বার ও ডায়লার অ্যাপসের আইপি বিশ্লেষণসহ উন্নত প্রযুক্তি ব্যবহার করে উক্ত প্রতারক চক্রকে সনাক্ত করেন।

উক্ত ঘটনায় তাদের বিরুদ্ধে ধানমন্ডি থানায় মামলা রুজু হয়েছে।
আজ গ্রেফতারকৃতদেরকে দশ দিনের রিমান্ডের আবেদন করে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন সাইবার সিকিউরিটি এন্ড ক্রাইম বিভাগের সোশ্যাল মিডিয়া মনিটরিং টিমের সহকারি পুলিশ কমিশনার ধ্রুব জোতির্ময় গোপ।
নিউজটি শেয়ার করুন:
এই ক্যাটাগরীর অন্যান্য সংবাদ সমূহ